গাংনীর বামন্দিতে দুইটি মিষ্টির দোকানে জরিমানা

meherpurerkanthomeherpurerkantho
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  08:08 PM, 09 November 2022

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার বামন্দী বাজারের ২টি মিষ্টান্ন ভাণ্ডারে জরিমানা করেছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর ও র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব৬) এর সমন্বয়ে গঠিত ভ্রাম্যমাণ আদালত। অপরিচ্ছন্ন ও নোংরা দুর্গন্ধযুক্ত পরিবেশে মিষ্টি তৈরী এবং ওজনে কম দেয়ার অভিযোগে দুই মিষ্টান্ন ভাণ্ডারের মালিক ৭০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

বুধবার দুপুরের দিকে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর, মেহেরপুর জেলা কার্যালয়ের সহকারি পরিচালক সজল আহমেদ গাংনী উপজেলার বামন্দী বাজারে এ জরিমানা আদায় করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন র‌্যাব-৬ (গাংনী) ক্যাম্পের কমান্ডার আবুল কালাম আজাদ ও প্রসিকিউটর হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মেহেরপুর জেলা স্যানিটারি ইন্সপেক্টর তাজিমুল হক।

জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তরের মেহেরপুর জেলা কার্যালয়ের সহকারি পরিচালক সজল আহমেদ বলেন, বামন্দী বাজারের মেসার্স হানিফ মিষ্টান্ন ভাণ্ডারের কারখানায় অপরিচ্ছন্ন ও নোংরা দুর্গন্ধযুক্ত পরিবেশে মিষ্টি ও মিষ্টি জাতীয় খাবার তৈরি হচ্ছে। অপরিচ্ছন্ন ও নোংরা জায়গাতে উন্মুক্ত অবস্থায় রাখা হয়েছে দই মিষ্টি। ফ্রিজের মধ্যে কাঁচা মাছ মাংস ও রক্তচর্বির সাথে রাখা হয়েছে রান্না করা খাবার ও দুধের ছানা। এছাড়া কর্মচারীদেরও যথাযথ স্বাস্থ্যবিধি নেই। প্যাকেটজাত দই মিষ্টিতে যথাযথ মোড়কীকরণ আইন মানা হচ্ছে না। এসব অপরাধে মেসার্স হানিফ মিষ্টান্ন ভান্ডারকে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ এর ৩৭ ও ৪৩ ধারায় ৫০ হাজার জরিমানা করা হয়েছে।
এছাড়া একই বাজারের মেসার্স আমিন মিষ্টান্ন ভাণ্ডার এর বিক্রয় কেন্দ্রে দই মিষ্টিতে ভোক্তাদের ওজনে ঠকানোর অপরাধে প্রতিষ্ঠানটিকে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনের ৩৭ ও ৪৬ ধারায় ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।
এসময় বাজার কমিটির মাধ্যমে নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্যের অনাকাঙ্ক্ষিত মূল্য বৃদ্ধির বিষয়ে সবাইকে সতর্ক করা হয়েছে।

আপনার মতামত লিখুন :